Breaking News

জব্দ গাড়ি ও মালামাল ফেরত চান পরীমনি

আদালতে হাজিরা দিয়ে জব্দকৃত গাড়ি ও ব্যক্তিগত ব্যবহার্য জিনিসপত্র ফেরত চেয়েছেন চিত্রনায়িকা পরীমনি। এসময় আদালতকে পরীমনি বলেন, “আমার বাসায় অভিযান চালিয়ে অনেক কিছুই নিয়ে যাওয়া হয়েছে। গাড়ির কাগজপত্রও আমার কাছে নেই। ফলে এখন আদালতে জমা দেওয়ার মতো কোনো কাগজপত্র আমার কাছে নেই”।

পরীমনির এ বক্তব্য শুনে আদালত তার ব্যক্তিগত গাড়ির মালিকানা যাচাই করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন। পাশাপাশি মাদক মামলার পরবর্তী শুনানির জন্য ১০ অক্টোবর দিন ধার্য করা হয়েছে।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ মামলায় হাজিরা দিতে বুধবার সকাল পৌনে এগারোটায় ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে পৌছান পরিমনি। পরে, ১১ টা ৫৫ মিনিটে হাকিম সত্যব্রত শিকদারের আদালতে প্রবেশ করেন তিনি। আদালতে পরীমনি দাবি করেন, অভিযানের দিন তার বাসায় ভাংচুর চালানো হয়েছে।

এসময় পরীমনির আইনজীবী নীলাঞ্জনা রেফাত সুরভী বলেন, গাড়িসহ অন্য ব্যবহৃত জিনিসপত্র ফেরত চেয়ে আদালতে আবেদন করা হয়েছে। পরীমনির আইপ্যাড, মোবাইল ফোনসহ অন্যান্য জিনিসপত্রও (আলামত) জব্দ করা হয়েছে। এসব প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র না থাকায় পরীমনি এখন নানান সমস্যায় পড়ছেন। বিশেষ করে গাড়ি না থাকায় তিনি নিরাপত্তা–হুমকির মধ্যে আছেন। মানবিক কারণে যেকোনো শর্তে তার জব্দ করা গাড়িটা ফেরত দেওয়ার আরজি জানান তিনি। পরে মালিকানা যাচাইয়ের স্বার্থে এ বিষয়ে তদন্ত প্রতিবেদন জমার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

আধাঘন্টা পরেই আদালত থেকে বেরিয়ে আসেন পরীমনি। পরে, খোলা জিপে দাঁড়িয়ে শত শত ভক্তকে হাত নেড়ে শুভেচ্ছা জানান তিনি।

পরে, সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী হেমায়েত উদ্দীন খান জানান, তদন্ত কর্মকর্তা হাজির না হওয়ায় এ মামলায় তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের দিন ১০ অক্টোবর ধার্য করা হয়েছে।

অন্যদিকে আদালতে চার্জশিট দাখিলের আগ পর্যন্ত পরীমনির জামিন বহাল থাকবে বলেও জানান তার আইনজীবী।

Check Also

কলেজ অধ্যক্ষকে নেতার চড় মারার মুহূর্ত ধরা পড়ল ক্যামেরায়

কলেজ অধ্যক্ষকে চড় মারছিলেন এক নেতা। একবার নয়, একাধিকবার। আর সেই মুহূর্তটি ধরা পড়েছে ক্যামেরায়। …

Leave a Reply

Your email address will not be published.