Breaking News

অপু বিশ্বাসের মন্তব্যের জন্য কি ক্ষেপে গেলেন সাকিবপত্নী?

আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপে টাইগারদের বাজে পারফরম্যান্স ও একের পর এক ব্যর্থতা নিয়ে সমালোচনার ঝড় বইছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কেবলই ব্যঙ্গ-বিদ্রুপেরই শিকার হচ্ছেন মাহমুদুল্লাহ-সাকিবরা। কথা উঠেছে বিসিবি নিয়েও। এর মধ্যে সাকিবপত্নী উম্মে আল হাসান শিশির ও সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার ভাই মোরশালিন বিন মর্তুজা ফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়ে সংবাদের শিরোনাম হয়েছেন।

    

এদিকে, গত মঙ্গলবার একটি ভিজুয়াল সাক্ষাৎকারে নাম উল্লেখ না করেই ক্রিকেটারের পরিবারকে ইঙ্গিত করে মন্তব্য ছুঁড়ে দিয়েছেন ঢাকাই ছবির জনপ্রিয় নায়িকা অপু বিশ্বাস। এটি ভাইরাল হওয়ার পর মিশ্রপ্রতিক্রিয়া দেখা যাচ্ছে নেটিজেনদের মধ্যে। কেউ কেউ মনে করছেন, অপু হয়তো সাকিবপত্নী শিশিরকে ইঙ্গিত করেছেন।

    

সাক্ষাৎকারটিতে ক্রিকেটারদের ব্যক্তিজীবন নিয়ে বলতে গিয়ে অপু বিশ্বাস বলেন, ‘ব্যক্তিজীবন আর প্রফেশনাল জীবন আলাদা হওয়া দরকার।

    

বাংলাদেশের বেশ কিছু ক্রিকেটার তাদের ব্যক্তিজীবনকে ক্যামেরার সামনে নিয়ে আসছেন। বা ব্যক্তি ফ্যামিলি পারসনকেও ক্যামেরায় ইনভলব করছেন যেটি আসলে তাদের কাজ নয়। ’

    

এই নায়িকা আরও বলেন, ‘কিছু কিছু ক্রিকেটার তাদের ফ্যামিলিকে এমনভাবে ক্যামেরার সামনে আনেন, তখন আমরা ভাবি, আমরা আসলে কাজ করার সুযোগ পাব কিনা। ’ এখানেই শেষ নয়, অপু বিশ্বাসের পছন্দের ক্রিকেটারদের মাশরাফি, তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম ও মোস্তাফিজ নেই সাকিবের নাম।

    

অপু বিশ্বাস তার ভালো লাগা এসব ক্রিকেটারদের ব্যক্তিত্বের কথা জানিয়ে বলেন, তাদের কাছে থেকে অনেক কিছু শেখার আছে। উল্লেখ্য, অপুর এমন মন্তব্যের পরই গতকাল বৃহস্পতিবার একটি ফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়েছেন শিশির। সেখানে তিনি ২০১৯ সালের টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে মন্তব্য করেছেন।

    

তিনি লিখেছেন, ‘আমরা কি ২০১৯ বিশ্বকাপ নিয়ে একটু কথা বলতে পারি? আমি ভাবছি কিভাবে আমরা ভারত, পাকিস্তান, ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ডের মতো বড় দলের বিপক্ষে জিততে পারিনি; যখন আমাদের গতিতারকারা এবং তথাকথিত সেরা ওপেনিং জুটি ছিল! কী ভুল হয়েছিল ওই ম্যাচগুলোতে? কৌতূহলী মন জানতে চায়! যদি আমরা সেই ভুলগুলোর কিছু নিয়ে আলোচনা করার জন্য তখন কিছু টক শো করতাম, তাহলে আজ আমাদের ব্যর্থ হতে হতো না!’

Check Also

সাড়ে পাঁচ ঘণ্টার বাবা

ঘটনাটা মাত্র সাড়ে পাঁচ ঘণ্টার। এই পাঁচ ঘণ্টার ঘটনা লিখতেই যখন এত শব্দ লাগল, তাহলে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.