সয়াবিন তেলের বোতলে লেখা দাম মুছে বেশি দামে বিক্রি, জরিমানা

একটি কোম্পানির দুই লিটারের সয়াবিন তেলের বোতলে খুচরা দাম লেখা ছিল ৩১৮ টাকা। দোকানি সেখান থেকে এক লেখাটি মুছে ফেলে অতিরিক্ত দামে বিক্রি করছিলেন। এক ভোক্তার অভিযোগ পেয়ে ওই দোকানে অভিযান চালায় জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় দোকানমালিককে ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

আজ বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় রাজশাহী নগরের উপশহর নিউমার্কেটে এ অভিযান চালানো হয়।

 

জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর রাজশাহী বিভাগীয় দপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. হাসান-আল-মারুফ বলেন, কয়েক দিন ধরে তাঁরা রাজশাহীর বাজারে তেলের দাম বাড়া নিয়ে নানা অভিযোগ পাচ্ছেন। বিক্রেতারা অভিনব সব কায়দায় দাম বাড়িয়ে তেল বিক্রির চেষ্টা করে যাচ্ছেন।

হাসান-আল-মারুফ বলেন, এক ভোক্তার ফোন পেয়ে আজ বেলা সাড়ে ১১টায় নগরের উপশহর নিউমার্কেট এলাকায় রইস উদ্দিন স্টোরে অভিযান চালান। ভোক্তার অভিযোগ অনুযায়ী, পাঁচ-ছয়টি দুই লিটারের সয়াবিন তেলের বোতলের দাম দোকানি মুছে ফেলে বেশি দামে ইচ্ছেমতো বিক্রি করছিলেন। দোকানদার মো. রশিদ বোতলের গায়ে লেখা ৩১৮ টাকা মূল্যের জায়গায় ১ লেখাটি মুছে দিয়েছেন। এভাবে ক্রেতার সঙ্গে প্রতারণা করছিলেন তিনি। এ কারণে তাঁকে ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

 

এদিকে গতকাল বুধবার বেশি দামে সয়াবিন তেল বিক্রি করায় উপশহর এলাকার মেসার্স এস আলম ট্রেডার্স নামের দোকানটি সিলগালা করে দিয়েছিল জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। দোকানের মালিক এস আলমকে জাতীয় ভোক্তা অধিকারের কার্যালয়ে এসে শুনানিতে অংশ নিতে বলা হয়।

এ বিষয়ে হাসান-আল-মারুফ বলেন, এস আলম আজ শুনানিতে অংশ নিয়ে মুচলেকা দিয়েছেন। পরে তাঁকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। তাঁর দোকানটি খুলে দেওয়া হয়েছে।

 

 

Check Also

ব্লুমবার্গের রিপোর্ট বাংলাদেশের ওপর চাপ বাড়ছে

জ্বালানি মূল্য বৃদ্ধির কারণে প্রতিদিন বিদ্যুৎ বিভ্রাট হচ্ছে। ডলারের রিজার্ভে চাপ পড়েছে। এ জন্য অর্থ …

Leave a Reply

Your email address will not be published.