এবার প্রায় সোয়া কোটি কোরবানির পশু প্রস্তুত

এবার কোরবানির হাটের জন্য গবাদিপশুর সরবরাহের সংখ্যা দুই লাখের বেশি বাড়ানো হয়েছে। এ বছর গরু, ছাগল, ভেড়া ও উট মিলিয়ে ১ কোটি ২১ লাখ ২৪ হাজার ৩৮৯টি পশু প্রস্তুত করা হয়েছে। মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

গতবারের মতো এবারও বেসরকারি উদ্যোক্তার পাশাপাশি সরকারিভাবে অনলাইন প্ল্যাটফর্মে কোরবানির পশু বিক্রি করার ব্যবস্থা করা হয়েছে। সরকারিভাবে অনলাইনে ক্রয়কৃত গরু পছন্দ না হলে টাকা ফেরত নেওয়ার ব্যবস্থা এ বছর সংযোজন করা হচ্ছে।

প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের তথ্যমতে, গত বছর কোরবানিযোগ্য পশুর সংখ্যা ছিল ১ কোটি ১৯ লাখ ১৬ হাজার ৭৬৫টি। এর মধ্যে কোরবানি হয় ৯০ লাখ ৯৩ হাজার ২৪২টি পশু। প্রায় ২৮ লাখ গবাদিপশু বিক্রি হয়নি।

কোরবানির হাটের বিষয়ে আন্তমন্ত্রণালয় সভা গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর ফার্মগেটে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের সম্মেলনকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে কোরবানির পশুর চাহিদা নিরূপণ, সরবরাহ ও অবাধ পরিবহন নিশ্চিতকরণ–সংক্রান্ত সামগ্রিক পরিস্থিতি নিয়ে পর্যালোচনা হয়।

সভায় বলা হয়, সিলেট-সুনামগঞ্জ অঞ্চলে সম্প্রতি বন্যা ও জলোচ্ছ্বাসের কারণে গবাদিপশু কিছুটা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। সেখানে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর থেকে গবাদিপশুর খাবার সরবরাহ ও চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। কোরবানির সময় যাতে ওই অঞ্চলে অন্য অঞ্চল থেকে পশু যেতে পারে সে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সভায় আরও বলা হয়, এ ছাড়া এবার সড়কে বা সেতুতে কোরবানির পশু পরিবহনকারী গাড়িকে প্রাধান্য দেওয়া হবে। এ ক্ষেত্রে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরে একটি নিয়ন্ত্রণকক্ষ চালু করা হবে এবং হটলাইন ১৬৩৫৮ চালু থাকবে। পশু পরিবহনে খামারিদের সমস্যা সমাধানে এ নিয়ন্ত্রণকক্ষ কাজ করবে।

পশু কোরবানির ক্ষেত্রে কোনোরকম সমস্যা যাতে না হয় সে জন্য সব ধরনের পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

কোরবানি উদ্‌যাপনে সরকারের পক্ষ থেকে পরিপূর্ণ প্রস্তুতি আছে বলে জানিয়েছেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী প্রথম আলোকে বলেন, কোরবানির হাটে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করা হবে। রোগগ্রস্ত পশু হাটে বিক্রি করতে দেওয়া হবে না। আইনশৃঙ্খলা রক্ষার জন্য পর্যাপ্ত সদস্য নিয়োগ করা হবে।

Check Also

বিদ্যার সাফ জবাব

রণবীরের নগ্ন ছবি ঘিরে বিতর্কে নতুন উস্কানি। বলিউড অভিনেত্রী বিদ্যা বালান বললেন, পুরুষের অনাবৃত শরীর …

Leave a Reply

Your email address will not be published.